মেকাপের জন্য তাঁদের অস্কার প্রাপ্য

নারী মাত্রই জানে, মেকাপে কি না হয়। এর বাইরে, এমন কিছু মেকাপ আর্টিস্ট আছেন যারা এতটাই দক্ষ্য যে তারা চাইলেই মেকাপ করে একজনকে পুরো ভিন্ন আরেকজনে রূপ দিতে সক্ষম।

  • অ্যালিসন টাবিথা
নিউট স্কম্যান্ডার
লারা ক্রফট
ওয়ান্ডার উইম্যান

কসপ্লে’র দুনিয়ায় অ্যালিসন টাবিথা হলেন বেতাজ সম্রাজ্ঞী। তিনি একদম হুবহু ভাবে রুপালি জগতের চরিত্রগুলোকে মেকাপে মধ্য দিয়ে বাস্তবে নিয়ে আসেন। এমনকি আসল কস্টিউমও ব্যবহার করেন তিনি।

  • লুসিয়া পিটালিস
রানী এলিজাবেথ
হাল্ক হোগান
মেরিল স্ট্রিপ

নিজের চেহারাটাকে ক্যানভাসের মত ব্যবহার করেন শিল্পী লুসিয়া পিটালিস। এটা তখন শুরু হয় যখন হ্যালোইনের জন্য নিজের মুখে রং করছিলেন পিটালিস। কালক্রমে এটা তাঁর জন্য সফল একটা শখে পরিণত হয়। আর এখন তার হাজার হাজার ভক্ত আছেন।

  • ক্যান্ডি জনসন
মেগান ফক্স
অ্যাঞ্জেলিনা জোলি
অড্রে হেপবার্ন

১০ বছর হতে চললো ক্যান্ডি জনসন মেকাপ আর্টিস্ট হিসেবে কাজ করছেন। তিনি আমেরিকার বিভিন্ন ম্যাগাজিনের হয়ে কাজ করছেন। তাঁর ইন্সটাগ্রামে আছে দুই মিলিয়ন ফলোয়ার।

  • অ্যালেক্সিস স্টোন
প্যারিস হিল্টন

মেকাপের মাস্টার অ্যালেক্সিস স্টোন। চাইলেই তিনি যেকোনো সময় যেকোনো সেলিব্রিটির রূপ ধারণ করতে পারেন।

  • পাওলো ব্যালেস্টেরোস
ডাকোটা জনসন
এমা ওয়াটসন
জুলিয়া রবার্টস
কিম কার্দাশিয়ান
লেডি গাগা

প্রসাধন সামগ্র, উইগ ও লেন্সের ব্যাপারে তিনি বিশেষ পারদর্শী। অন্য কোনো চেহারায় নিজেকে বদলে ফেলা তাঁর জন্য কোনো ঘটনাই না।

  • তামাং ফান
এড শেরিন

তামাং ফানকে অনেক সময় ‘দ্য ক্যামেলিয়ন গার্ল’ বলে ডাকা হয়। ভিন্ন লিঙ্গে বা অনেক সময় কার্টুন চরিত্রেও তিনি নিজেকে বদলে ফেলতে পারেন।

  • লোনা বুগায়েভা
কারা ডেলেভিঙনে

তাঁর বয়স মোটে ১৯ বছর। এই বয়সেও তিনি রাশিয়ার অন্যতম সেরা কসপ্লে শিল্পীদের একজন। তিনি একজন মানুষের চেহারার ডিটেইলস নিয়ে অনেক কাজ করেন।

  • রেবেকা সুইফট
জোরি ডেশ্যানেল

রেবেকা সুইফট শৈশব থেকেই মেকাপ নিয়ে খুব আগ্রহী। শৈশবের এই শখ প্রাপ্ত বয়সে তাঁর পেশায় পরিণত হয়। সেলিব্রিটিদের চেহারায় নিজেকে বদলে ফেলাই তাঁর কাজ। তিনি এমন ভাবে সাজেন যে চট করে ধরে ফেলা কঠিন।

– ব্রাইট সাইড অবলম্বনে

https://www.mega888cuci.com