গেম অব থ্রোনস: শেষ সিজন, বড় চমক

বিদেশি সিরিজপ্রেমীদের সংখ্যাটা বাংলাদেশে নেহায়েৎ কম নয়। আর যত দিন যাচ্ছে, এই সংখ্যাটা যেন ক্রমেই বাড়ছে। বাইরের বাংলাদেশেও এখন টেলিভিশন, রেডিও, সিনেমা ছাড়াও বিনোদনের মাধ্যম হিসেবে অনলাইন প্ল্যাটফর্ম বেশ জনপ্রিয়। বিগত কয়েক বছর ধরেই আমাদের দেশে বাইরের দেশের নানা আলোচিত সিনেমার বাইরে বিদেশি সিরিজ গুলোও বেশ আগ্রহের কেন্দ্রবিন্দুতে রয়েছে। আর এই লিস্টে সবার প্রথমে যে নাম থাকবে সেটি হলো ‘গেম অব থ্রোনস’।

এর আগের প্রতিটি সিজনের মতো নতুন সিজন নিয়েও ব্যাপক আগ্রহ ছিল ভক্ত থেকে শুরু করে সাধারন দর্শকদের মাঝে। এর অন্যতম কারণ হলো এবার এই সিজনের মধ্য দিয়ে শেষ হতে চলেছে এই এপিক সিরিজের। তাই ‘গেম অব থ্রোনস’-এর চূড়ান্ত পরিণতি দেখতে ভক্তদের আগ্রহ ক্রমেই বাড়ছে। ঠিক এই রকম এক পরিস্থিতিতে ভক্তদের আগ্রহ দ্বিগুণ বাড়িয়ে দিল এইচবিও চ্যানেল কর্তৃপক্ষ।

পাঁচ মার্চ রাতে প্রকাশ করলো ‘গেম অব থ্রোনস’ এর শেষ সিজনের নতুন একটি ট্রেলার। ট্রেলারটির দৈর্ঘ্য ২ মিনিট ২ সেকেন্ড।ট্রেলারে দর্শকপ্রিয় সিরিজটির শেষ সিজনের নতুন কিছু দৃশ্য দেখানো হয়েছে যেখানে রয়েছে সিরিজটির গুরুত্বপূর্ণ সকল চরিত্র। তাই এককথায় এটা যেন আগুনে ঘিঁ ঢালা। এমনিতেই এটি দেখার জন্য সারা বিশ্বে ছড়িয়ে থাকা ভক্তদের প্রত্যাশার পারদ বেড়েই চলছে তার মধ্যে দৃষ্টিনন্দন এবং অসাধারণ ভিএফএক্স এই আগ্রহ আরো নতুন করে বাড়িয়ে তুললো।

বর্তমান সময়ের সব থেকে জনপ্রিয় শো ‘গেম অফ থ্রোনস’ প্রতিনিয়তই এর গল্প ও দৃশ্যায়নের মাত্রা বাড়িয়ে চলেছে। এর এক একটি এপিসোডের খরচে একটি পূর্ণদৈর্ঘ্য সিনেমা তৈরি করা সম্ভব। বলা হচ্ছে, সিরিজের শেষ সিজনটি সবকিছুকে ছাপিয়ে যাবে। উল্লেখ্য গত সিজনেই নাইট কিংয়ের নেতৃত্বে জীবন্মৃতরা আক্রমণ শুরু করেছিল।

শেষ সিজনেই হবে সবচেয়ে বড় যুদ্ধ হবে বলে ধারণা করা হচ্ছে। ক্ষমতাসীন ল্যানিস্টার্সদের সঙ্গে লড়াই হবে স্টার্ক ও টার্গারিয়েনদের, উদ্দেশ্যটা পুরনো – সিংহাসনের দখল। জীবন্মৃত হোয়াইট ওয়াকারদের সাথে স্টার্ক ও টার্গারিয়েনদের জোটবদ্ধ হয়ে যুদ্ধ করাটা হবে এই সিজনের বাড়তি চমক।

মাত্র ছয় পর্বে নির্মিত গেম অব থ্রোনসের শেষ সিজন মুক্তি পাচ্ছে আগামী ১৪ এপ্রিল, মানে আমাদের বাংলা নববর্ষের দিন। সিরিজ প্রেমীদের জন্য নতুন বছর শুরু করার এর থেকে ভাল উপায় আর হতেই পারে না।

https://www.mega888cuci.com