অত:পর তাহারা সুখে শান্তিতে বসবাস করিতে লাগিলো

ভাগ্যের লিখন আসলে বলা মুশকিল। এই অভিনেত্রীদের কথাই ধরুণ না। বলিউডে তাঁরা একেবারে কম সময় ছিলেন না। ভাল ছবিও করেছে। তবে, খুব বেশি থিঁতু হতে পারেননি। কিন্তু, দেখুন না, বিয়ে করে স্বামী সংসার নিয়ে দিব্যি আয়েশে, অভিজাত্যেই কেটে যাচ্ছে তাঁদের জীবন।

  • আয়েশা টাকিয়া

বিয়ে করেছেন রেস্টুরেন্ট মালিক ফারহান আজমিকে। ফারহানের বাবা আবু আসিম আজমি হলেন সমাজবাদী পার্টির বড় নেতা। সুখেই আছেন আয়েশা। ‘টারজান: দ্যা ওয়ান্ডার কার’ সিনেমা দিয়ে বলিউডে আসা আয়েশার ক্যারিয়ারে ‘ওয়ান্টেড’-এর মত হিট সিনেমাও আছে। যদিও, সেটা তাঁর ক্যারিয়ার টেকাতে পারেনি।

  • এশা দেওল

বাবা ধর্মেন্দ্র ও মা হেমা মালিনি হলে বলিউডে টিকে থাকতে বাড়তি কিছু না করলেও চলে। তবে, এশা দেওলের গল্পটা এত সহজ নয়। বাবা-মার মত বড় তারকা হতে পারেননি তিনি। ২০১২ সালে তিনি ডায়মন্ড ব্যবসায়ী ভারত তাখতানিকে বিয়ে করেন।

  • অমৃতা অরোরা

প্রিয় বান্ধবী কারিনা কাপুরের মত আকাশ ছোয়া সাফল্য তিনি পাননি। এমনকি বোন মালাইকা অরোরার পর্যায়েও পৌঁছাতে পারেননি। প্রেমিক শাকিল লাদাককে বিয়ে করেছেন। শাকিল মুম্বাইয়ের খুব পরিচিত কনস্ট্রাকশন প্রতিষ্ঠান রেডস্টোন গ্রুপের পরিচালক।

  • সেলিনা জেটলি

২০০১ সালের মিস ইন্ডিয়া সেলিনা জেটলি বিয়ে করেছেন পিটার হ্যাগকে। এই অস্ট্রিয়ান খুব নামী একজন রেস্টুরেন্ট ব্যবসায়ী। দুবাই ও সিঙ্গাপুরে তাঁর চেইন হোটেল আছে। স্বামী  ও সংসার নিয়ে ‘জানাশিন’ খ্যাত ধুসর চোখের এই নায়িকা এখন দেশের বাইরেই থাকেন।

  • শিল্পা শেঠি

২০০৯ সালে শিল্পা বিয়ে করেন রাজ কুন্দ্রাকে। রাজ কুন্দ্রা ২০০৪ সালে ‘সাকসেস’ ম্যাগাজিনের বিবেচনায় শীর্ষ ব্রিটিশ-এশিয়ান ধনীদের মধ্যে ১৯৮ তম স্থানে ছিলেন। পরবর্তীতে শিল্পা ও রাজ ছিলেন ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগের (আইপিএল) দল রাজস্থান রয়্যালসের মালিক। এখন শিল্পার ক্রিকেটে বা সিনেমা – কোনোটির সাথেই অবশ্য যোগাযোগ নেই।

– বলিবাইটস.কম অবলম্বনে

https://www.mega888cuci.com