শাহরুখের এই ছবিগুলো কখনোই মুক্তি পাবে না

লম্বা সময় ধরে বলিউডে তিনি কিং খান-এর তকমা নিয়ে আছেন। তার নামের জোরেই আজো অসংখ্য দর্শক মুভি থিয়েটারে লে আসে। শুধু সিনেমার সাফল্যতেই নয়, বর্তমান বলিউড ইন্ডাস্ট্রিতে এসআরকে সবচেয়ে প্রভাবশালী নামগুলোর একটি।

তবে, এই চিত্রটা সব সময় ঠিক এমন ছিল। ক্যারিয়ারের শুরুতে শাহরুখ খানকে অনেক ঝড় ঝাপটা সামলাতে হয়েছে। এমন অনেক সিনেমায় তাঁকে কাস্ট করা হয়েছিল যা আদৌ আর কখনো মুক্তিই পাবে না। এমনকি বড় তারকা হওয়ার পরও শাহরুখ এমন কিছু সিনেমার সাথে যুক্ত হয়েছিলেন যার কাজ মাঝপথে এসে থেমে যায়। ছবিগুলো আর কখনোই আলোর মুখ দেখবে না।

  • কিসি সে দিল লাগা কার তোহ দেখো

শাহরুখের সাথে ছিলেন আয়শা জুলকা ও মাধু। প্রোজেক্টের শুটিং হয় ১৯৯৬ সালে। তবে, অজানা কারণে সিনেমাটিকে মুক্তি দেওয়া হয়নি। কালপাত্রার পরিচালনায় ছবিটিতে সঙ্গীত পরিচালনায় ছিলেন রাজেশ রোশন।

  • রাশক

ঐশ্বরিয়া রায়, শাহরুখ খান ও জুহি চাওলা – ছবিটিতে তারকার কোনো অভাব ছিল না। তিন জনই তখন ছিলেন ক্যারিয়ারের চূড়ায়। ২০০১ সালে ছবিটির কাজ শেষ করার কথা ছিল। কিন্তু, ঠিক কি কারণে ছবিটি ঝুলে যায় সেটা আজো অজানা।

  • শিখর

কথা ছিল সুভাষ ঘাইয়ের এই ছবিতে জুটিবদ্ধ হবেন শাহরুখ ও মাধুরী দিক্ষিত। তবে, ‘ত্রিমুর্তি’ ছবিটি ফ্লপ হওয়ার পর ১৯৯৫ সালে প্রোজেক্টটি স্থগিত করা হয়। সুভাষ ঘাই এরপর ‘পরদেশ’ নির্মানে মন দেন। এরপর ‘শিখর’-এর স্ক্রিপ্ট নিয়ে আবার কাজ শুরু করেন। অনেক পরিবর্তন এনে সেটা দিয়েই নির্মিত হয় খ্যাতনামা ‘তাল’ ছবিটি। ১৯৯৯ সালের এই সিনেমায় কাজ করেন অক্ষয় খান্না, ঐশ্বরিয়া ও অনিল কাপুর।

  • এক্সট্রিম সিটি

ছবিটি মুক্তি পেলে শাহরুখের ক্যারিয়ারের অন্যতম স্মরণীয় কাজ হয়ে থাকতো এই ছবিটি। কারণ ছবিতে স্বয়ং লিওনার্দো ডি ক্যাপ্রিওর সাথে পর্দায় জুটি বাঁধার কথা ছিল শাহরুখের। এটা ২০১১ সালের কথা। পরিচালনার দায়িত্বে ছিলেন হলিউডের মাটিন স্করসেস। তবে, সিনেমাটির কাজই আর শুরু হয়নি। নতুন করে হওয়ার সম্ভাবনাও নেই বললেই চলে।

  • আহামাক

শাহরুখ খান অভিনীত ১৯৯১ সালের এই ছবিটি ২০১৫ সালে মুম্বাই ফিল্ম ফেস্টিভ্যালে দেখানো হয়েছিল। এটা অনেকটা মিনি সিরিজের আদলে বানানো একটা হিন্দি ছবি। যদিও, কখনোই ছবিটিকে সিনেমা থিয়েটারে মুক্তি দেওয়া হয়নি।

  • কুছি কুছি হোতা হ্যায়

তালিকায় এই নামটিই সবার চেয়ে আলাদা। এটা হল শাহরুখ অভিনীত বিখ্যাত ছবি ‘কুছ কুছ হোতা হ্যায়’র অ্যানিমেটেড ভার্সন। এই ছবিরও ঘোষণা আসার পর কাজও শুরু হয়। যদিও অজানা কারণে ছবিটিকে মুক্তি দেওয়া হয়নি।

দেশিমার্টিনি অবলম্বনে

https://www.mega888cuci.com