যেভাবে দ্বিতীয় রাউন্ডে যেতে পারে আর্জেন্টিনা

বিপর্যস্ত লিওনেল মেসি, বিপর্যস্ত আর্জেন্টিনা। এক ড্র আর এক পরাজয়ে খাদের কিনারায় দাঁড়িয়ে দলটি। এই অবস্থা থেকে দ্বিতীয় পর্বে ওঠার খুব কঠিন, তবে অসম্ভব নয়। চলুন সেই কঠিন রাস্তার ব্যাপারে অবগত হই।

দ্বিতীয় পর্বে টিকেট পাওয়ার যেকোনো সমীকরণের ক্ষেত্রেই সবচেয়ে জরুরী হল শেষ ম্যাচে আর্জেন্টিনার জয়। আগামী বুধবার ‘ডি’ গ্রুপে নিজেদের শেষ ম্যাচে নাইজেরিয়ার মুখোমুখি হবে লিওনেল মেসিরা। সেটা আক্ষরিক অর্থেই হোর্হে সাম্পাওলির দলের জন্য বাঁচামরার লড়াই।

শুধু জিতলেই হবে না, বাকি দলগুলোর খেলার দিকেও চোখ রাখতে হবে আর্জেন্টিনাকে। এর মধ্যে আইসল্যান্ড যদি গ্রুপে নিজেদের বাকি দু’টি ম্যাচে (প্রতিপক্ষ নাইজেরিয়া ও ক্রোয়েশিয়া) হেরে যায় তাহলে শেষ ম্যাচ জিতেই দ্বিতীয় পর্বের টিকেট পেয়ে যাবে আর্জেন্টিনা। তখন আর্জেন্টিনার পয়েন্ট হবে চার, আর আইসল্যান্ডের মোটে এক। নাইজেরিয়ার বিপক্ষে আইসল্যান্ড ড্র আর ক্রোয়েশিয়ার বিপক্ষে হারলেও, কেবল নাইজেরিয়াকে হারিয়েই দ্বিতীয় পর্বে চলে যেতে পারে আর্জেন্টিনা, কারণ তখনও আইসল্যান্ডের চেয়ে দুই পয়েন্ট এগিয়ে থাকে তাঁরা।

নাইজেরিয়ার বিপক্ষে আইসল্যান্ড জিতে গেলেও আর্জেন্টিনার একটা রাস্তা খোলা থাকবে। সেক্ষেত্রে নাইজেরিয়াকে পরে আর্জেন্টিনার কাছে হারতে হবে, আর আইসল্যান্ডকে হারতে হবে ক্রোয়েশিয়ার কাছে। সেই সময় আর্জেন্টিনা ও আইসল্যান্ড – দু’দলেরই পয়েন্ট হবে সমান চার। তখন দেখা হবে গোল ব্যবধান।

তবে, নাইজেরিয়ার বিপক্ষে জয় আর ক্রোয়েশিয়ার বিপক্ষে ড্র দিয়ে অনায়াসে দ্বিতীয় রাউন্ডে চলে যেতে পারে আইসল্যান্ড। সেক্ষেত্রে তাঁদের পয়েন্ট হবে পাঁচ।

‘ডি’ গ্রুপ থেকে দ্বিতীয় পর্ব নিশ্চিত করেছে কেবল ইউরোপিয়ান দল ক্রোয়েশিয়া। আর বাকি তিনটি দলেরই কাগজে কলমে দ্বিতীয় পর্বে যাওয়ার পথ খোলা আছে। এমনকি নাইজেরিয়াও গ্রুপ পর্বের বাকি দু’টো ম্যাচ জিতে পেয়ে যেতে পারে দ্বিতীয় পর্বে যাওয়ার টিকেট। তখন ছয় পয়েন্ট নিয়ে নাইজেরিয়া হবে গ্রুপের দ্বিতীয় সেরা দল।

তবে, আর্জেন্টিনা যদি দ্বিতীয় পর্বে যায়, তাহলে যাবে গ্রুপের দ্বিতীয় দল হিসেবে। সেক্ষেত্রে সামনেই তাঁদের গ্রুপ ‘সি’র সম্ভাব্য সেরা দল ফ্রান্সের বাঁধার মুখে পড়তে হবে। গ্রুপ পর্বেই যাদের এই নাজেহাল অবস্থা, ফ্রান্সের সামনে পড়লে সেই সমস্যা আরো প্রকট হওয়াটাই স্বাভাবিক।

আসছে বুধবার নাইজেরিয়ার বিপক্ষেও লড়াইটা সহজ হওয়ার কথা নয় সাদা-নীল জার্সিধারীদের। সর্বশেষ ২০১৭ সালের ১৪ নভেম্বর প্রীতি ম্যাচে মুখোমুখি হয়েছিল দু’দল। সেবার ৪-২  গোলে হারে আর্জেন্টিনা। এর আগে ব্রাজিলে ২০১৪ বিশ্বকাপেও গ্রুপ পর্বেই দেখা হয়েছিল দু’দলের। সেখানে আর্জেন্টিনা জিতেছিল ২-৩ গোল। মেসি জোড়া গোল করেন, মার্কোস রোহো করেন অপরটি। সেই ম্যাচে জোড়া গোল করা নাইজেরিয়ার আহমেদ মুসা আছেন এবারো।

https://www.mega888cuci.com