জাহ্নবি বনাম সারা: ব্যাটল অব স্টারকিডস

বক্স অফিসের সাফল্য, অনবদ্য কিছু পারফরম্যান্স আর কনটেন্টবহুল সিনেমা – ২০১৮ সাল বলিউডকে দিয়েছে হাত ভরে। আরো যে জিনিসটা দিয়েছে সেটা হল প্রতিশ্রুতিশীল কিছু তরুণ-তরুণী।

আর কথা যখন হচ্ছে নবাগতদের নিয়ে তখন আলাদা করে বলতেই হয় দু’জন স্টারকিডের কথা। তারা হলেন বনি কাপুর ও প্রয়াত শ্রীদেবীর মেয়ে জাহ্নবি কাপুর এবং সাইফ আলী খান ও অমৃতা সিংয়ের মেয়ে সারা আলী খান। যথাক্রমে ‘ধাড়াক’ ও ‘কেদারনাথ’ দিয়ে ২০১৮ সালে বলিউডে অভিষেক হয়েছে তাঁদের।

বাস্তব জীবনে এই দু’জন ভাল বন্ধু। অথচ, তারাই এখন একে অপরের প্রতিদ্বন্দ্বী। ভবিষ্যতে কি হবে সেটা সময়েই বলে দেবে, তবে এখন তাঁরা হাঁটছেন সমান গতিতেই। তাঁদের ক্যারিয়ারের তুলনামূলক বিশ্লেষণ নিয়ে আমাদের এবারের আয়োজন।

  • অনস্ক্রিন

‘কেদারনাথ’ সিনেমার মূল আলোটা কেড়েছেন সুশান্ত সিং রাজপুত। তবে, তাঁর পাশে সারাও নিজের সহজাত অভিনয় দক্ষতায় মুগ্ধ করেছেন। দেখে বোঝার উপায় ছিল না যে এটাই তাঁর প্রথম সিনেমা। অনেক সমালোচক সারার সাথে তাঁর মা অমৃতা সিংয়ের তুলনাও করেছেন।

অন্যদিকে জাহ্নবির সিনেমা ‘ধাড়াক’ ছিল মারাঠি সিনেমা ‘সাইরাত’-এর রিমেক। পঙ্কজ কাপুরের ছেলে ও শহীদ কাপুরের ভাই বংশের ধারাবাহীকতা ধরে রেখে নিজের অভিনয় দক্ষতার পরিচয় দিয়েছেন। জাহ্নবির ডায়লোগ থ্রোয়িংয়ে সামান্য সমস্যা থাকলেও চোখ-মুখের অভিভূতি দিয়ে তিনি সেটা কাটিয়ে ফেলেছেন।

  • ব্যবসায়িক সাফল্য

মজার ব্যাপার হল, জাহ্নবি ও সারা দু’জনই নিজেদের অভিষেক সিনেমায় মফস্বল শহরের মেয়ের চরিত্র করেছেন। ব্যবসায়িক সাফল্যের দিক থেকে অবশ্য এখন অবধি জাহ্নবিই এগিয়ে। প্রথম উইকেন্ডে ‘ধাড়াক’-এর আয় ছিল ৩৩.৬ কোটি রুপি। আর ‘কেদারনাথ’-এর আয় ২৭.৭৫ কোটি রুপি। ‘ধাড়াক’-এর দৌড় শেষ হয় ৭৫ কোটি রুপিতে গিয়ে।

  • অপেক্ষমান সিনেমা

মুক্তির অপেক্ষায় থাকা সিনেমার দিক থেকে নি:সন্দেহে এগিয়ে থাকবেন সারাই। তেলেগু সিনেমা ‘টেম্পার’-এর রিমেক রোহিত শেঠির ‘সিম্বা’ সিনেমায় তাঁর বিপরীতে ছিলেন রণবীর সিং। ‘আঁখ মারে’ গান দিয়ে আলোচনার ঝড় তুলেছেন সারা। ছবিটিও হয়েছে সুপার হিট। এবার তিনি কার্তিক আরিয়ানের সাথে জুটিবদ্ধ হয়েছেন ইমতিয়াজ আলীর সিনেমায়। এছাড়া তিনি ডেভিড ধাওয়ানের সিনেমা ‘কুলি নম্বর ওয়ান’-এর রিমেকে তিনি থাকবেন বরুণ ধাওয়ানের বিপরীতে।

অন্যদিকে জাহ্নবিকে দেখা যাবে করণ জোহরের তারকাবহুল সিনেমা ‘তাখত’-এ। সিনেমাটি মুক্তি পাবে ২০২০ সালে। এছাড়া বৈমানিক গুঞ্জন সাক্সেনার বায়োপিকে কেন্দ্রীয় চরিত্রে থাকছেন তিনি। এটাও ২০২০ নাগাদ থিয়েটারে উঠবে। ‘রণভূমি’ ও ‘রুহ আফজা’ নামের দু’টি ছবির কথাও শোনা যাচ্ছে।

  • অফ স্ক্রিন

পর্দার বাইরেও এই দুই নবাগত তারকা নজর কাড়তে সক্ষম হয়েছেন। এর মধ্যেই ভোগ, গ্রাজিয়া ও ব্রাইডস টুডে ম্যাগাজিনের কভার গার্ল হিসেবে দেখা গেছে জাহ্নবিকে।

বাবা সাইফ আলী খানের সাথে সারা হাজির হয়েছিলে ‘কফি উইদ করন’ শো-তে। এই মৌসুমের অন্যতম আলোচিত এপিসোড ছিল বাবা-মেয়ের এই যুগলবন্দী। যেভাবে প্রশ্নগুলোর উত্তর দিয়েছেন, বিতর্কিত প্রশ্নের সামলা করেছেন, তাতে একটা কথাই বলা উচিৎ – বলিউডে এসেছেন নতুন তারকা, তাঁকে ছেড়ে দিতে হবে স্থান!

  • পুরস্কার

অভিনয় জীবনের প্রথম বছরের বলিউডের সবচেয়ে বড় পুরস্কার ‘ফিল্মফেয়ার’ পেয়েছেন সারা। তিনি ‘কেদারনাথ’-এর জন্য সেরা নবাগত অভিনেত্রীর পুরস্কার জিতেছেন। অন্যদিকে ফিল্মফেয়ার না হলেও জি সিনে পুরস্কারে সেরা নবাগত’র ক্যাটাগরিতে বিজয়ী হয়েছেন জাহ্নবি। বোঝাই যাচ্ছে, একে অপরের ঘাড়ে নিশ্বাস ফেলেই এগোচ্ছেন দু’জন।

– হিন্দুস্তান টাইমস, ফার্স্ট পোস্ট ও দেশিমার্টিনি অবলম্বনে

Related Post

অলিগলি.কমে প্রকাশিত সকল লেখার দায়ভার লেখকের। আমরা লেখকের চিন্তা ও মতাদর্শের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। প্রকাশিত লেখার সঙ্গে মাধ্যমটির সম্পাদকীয় নীতির মিল তাই সব সময় নাও থাকতে পারে।