অকৃতজ্ঞ সমর্থক সমাচার

বছর দুয়েক আগে একটা লোক তাঁর দেশকে চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি এনে দিছে। সেই লোকটাকেই তার নিজের দেশের মানুষ এখন সমানে গালিগালাজ করছে, ফিটনেস নিয়ে নোংরা খোঁটা দিচ্ছে।

শিশুসন্তান কোলে থাকা অবস্থায় শুকর এর সাথে তুলনা করতেছে। লোকটার স্ত্রী যেই ভিডিও দেখে হাউ-মাউ করে কেঁদেছেন। লোকটার জন্য আমার খারাপ লেগেছে।

একটা দেশের মানুষ কি পরিমাণ অকৃতজ্ঞ হলে এমন কুৎসিত আচরণ করতে পারে? পাকিস্তানিরা একজন সরফরাজ আহমেদের সাথে এমন আচরণ করছে। দুই বছর পার হতে না হতেই একটি চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি তাদের কাছে মূল্যহীন হয়ে পড়েছে! তাদের যে আরো বেশি কিছু লাগবে!

ইতিহাসের সেরা দল নিয়ে বিশ্বকাপ খেলতে যাওয়া বাংলাদেশ দলকে নিয়ে কিছু লোক যেভাবে উঠতে বসতে সমালোচনা করা শুরু করেছে, তাতে আসলে ভয়ই লাগে। অন্যের হাত ধরে সাফল্য অর্জনের এই অপরিসীম লোভ কি আমাদেরও আস্তে আস্তে এমন নিকৃষ্ট সমর্থকগোষ্ঠীতে পরিণত করবে?

আজকে যে সাকিবকে নিয়ে গর্বে বুক ভাসাচ্ছেন, কয়টা ম্যাচ খারাপ(কিংবা কম ভাল) খেললেই তাকেও গালি দিতে একটুও মুখে আটকাবে না অনেকের।

টেলিভিশনের সামনে কিংবা গ্যালারিতে বসে হাততালি আর গালি দিয়ে দেশপ্রেমিক সাজার ভান করা খুব সহজ। দেশের জন্য নিজে কিছু করা এতো সহজ নয়। আর মানুষ হওয়া তো খুব খুব কঠিন কাজ।

Related Post

অলিগলি.কমে প্রকাশিত সকল লেখার দায়ভার লেখকের। আমরা লেখকের চিন্তা ও মতাদর্শের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। প্রকাশিত লেখার সঙ্গে মাধ্যমটির সম্পাদকীয় নীতির মিল তাই সব সময় নাও থাকতে পারে।