একটি অনন্ত যৌবনা ব্যাট

ক্রিস্টোফর হেনরি গেইল ফুরিয়ে গেছেন – এই কথাটাকে কী দানবীয় কায়দায় বৃদ্ধাঙ্গুলি দেখানো গেল। ৩৯ বছর বয়সেও কতটা পাষবিক ক্ষমতা নিজের ব্যাটে ধারণ করে আছেন তিনি, সেটা সদ্য শেষ হওয়া ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজেই বোঝা গেল। বোঝা গেল, প্রেমিকার চোখের কাজল মলিন হয়ে যেতে পারে, কিন্তু গেইলের ব্যাট বরাবরই অনন্ত যৌবনা।

পাঁচ ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজে দু’টি করে সেঞ্চুরি ও হাফ সেঞ্চুরিতে ১০৬ গড়ে ৪২৪ রান করেছেন তিনি। হয়েছেন সিরিজ সেরা। গেইলের এমন বিধ্বংসী রুপ দেখে অবাক বিশ্ব ক্রিকেটের সাবেক তারকারা। আগামী বিশ্বকাপে গেইল প্রতিপক্ষের জন্য হুমকি বলেও মনে করেন সাবেকরা।

ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজ শুরুর আগেই নিজের ভবিষ্যত নিয়ে খোলাসা করেন গেইল। আগামী বিশ্বকাপের পরই আন্তর্জাতিক অঙ্গন থেকে অবসর নিবেন বলে জানান তিনি। কিন্তু ইংল্যান্ডের বিপক্ষে সদ্যই শেষ হওয়া ওয়ানডে সিরিজে নিজের পারফরমেন্স দেখে নিজেই হতবাক গেইল। তাই বলে বসলেন, ‘অবসর না নেয়ার ব্যাপারে ভেবে দেখবো।’

ইংল্যান্ডের বিপক্ষে প্রথম ওয়ানডেতে ১৩৫, দ্বিতীয়টিতে ৫০, তৃতীয় ম্যাচে ১৬২ ও শেষ ম্যাচে মাত্র ২৭ বলে ৭৭ রান করেন গেইল। ৯টি ছক্কা ও পাঁচটি চার মারেন তিনি। এ ম্যাচে মাত্র ১৯ বলে হাফ-সেঞ্চুরির স্বাদ নেন গেইল। যা ওয়েস্ট ইন্ডিজের পক্ষে ওয়ানডেতে দ্রুততম হাফ-সেঞ্চুরি।

গেইলের এমন বিধ্বংসী ব্যাটিং দেখে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ইউনিভার্স বসের প্রশংসা করেছেন ক্রিকেট সাবেক তারকারা। অস্ট্রেলিয়ার উইকেটরক্ষক অ্যাডাম গিলক্রিস্ট বলেন, ‘ওয়ানডেতে এমন বিধ্বংসী প্রতি ম্যাচে কিভাবে হতে হয় তা দেখালো গেইল। আগামী বিশ্বকাপে প্রতিপক্ষের জন্য বড় ধরনের হুমকি হতে যাচ্ছে গেইল।’

ভারতের সাবেক মারকুটে ব্যাটসম্যান বীরেন্দ্র শেবাগ লেখেন, ‘এমন ব্যাটিংয়ের জন্যই সে ইউনিভার্স বস। মাত্র ২৭ বলে ৭৭ রান, ছক্কার বৃষ্টি হলো। কি আনন্দই না দিল সে।’

ওয়েস্ট ইন্ডিজের মিডল অর্ডার ব্যাটসম্যান মারলন স্যামুয়েলসও বাদ যাননি গেইলকে নিয়ে প্রশংসা করতে। ২০১৬ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ফাইনালের সেরা খেলোয়াড় স্যামুয়েলস টুইটারে লিখেছেন, ‘বিশ্বকে গেইল জানিয়ে দিলো, আগামী বিশ্বকাপে ভয়ংকর খেলোয়াড় হবে সে। বিশ্বকাপে বড় সাফল্য পেতে পুরোপুরি তৈরি সে। তার জন্য শুভ কামনা থাকলো।’

আগামী বিশ্বকাপে ঝড় তুলতে গেইল যে অস্থির হয়ে আছেন, তা ইংল্যান্ডের বিপক্ষে সিরিজ শেষে তার কথায় অনুমেয়, ‘৩৯ বছর বয়সে সিরিজ সেরা আমি! অবাক লাগছে। আসন্ন বিশ্বকাপে অন্য দলগুলো সমীহ করবে ওয়েস্ট ইন্ডিজকে। আমাদের নিয়ে সব দলকে ভাবতে হবে।’

Related Post

অলিগলি.কমে প্রকাশিত সকল লেখার দায়ভার লেখকের। আমরা লেখকের চিন্তা ও মতাদর্শের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। প্রকাশিত লেখার সঙ্গে মাধ্যমটির সম্পাদকীয় নীতির মিল তাই সব সময় নাও থাকতে পারে।