অসম্ভবকে সম্ভব করতে চীন যা করে থাকে

বলা হয়, যা পৃথিবীর অন্য কোথাও সম্ভব নয়, সেটা কেবল চীনেই সম্ভব। চীন মানেই বাকি বিশ্ব ভুতুড়ে কোনো কিছুর প্রত্যাশা করে। আর প্রতিনিয়তই সেই প্রত্যাশা মিটিয়ে চলেছে চীন। এমন অনেক বিষয়ই আছে, যা চীন বাদে বিশ্বের অন্য কোথাও রীতিমত অবাস্তব।

  • হাঙ্গর-কুমির বিক্রি

চীনে ওয়ালমার্টের মত সুপার শপগুলোতে গেলে চমকে ওঠাটা খুব স্বাভাবিক। কারণ সেখানে হাঙ্গর কিংবা কুমিরের আলাদা কোনো অংশ নয়, বরং, পুরোটাই বিক্রি করা হয়।

  • কুকুরের জায়গায় হাঁস

পুলিশ ফোর্সে বিশেষ ধরণের প্রশিক্ষণ পাওয়া কুকুর ব্যবহারের রীতি অনেক দেশেই আছে। তবে চীনা পুলিশ এদিক থেকে আরো এক ধাপ এগিয়ে। তাঁরা কুকুর নয়, ব্যবহার করেন হাঁস। তাঁদের দাবী, পাখিদের দৃষ্টি অনেক প্রখর আর তারা মানুষের আক্রমণাত্মক মানসিকতা ধরে ফেলতে পারে।

  • জীবন্ত কাকড়া বিক্রি

চীনে বিশেষ ধরণের বাক্সবন্ধী অবস্থায় জীবন্ত কাকড়া পাওয়া যায়। বাক্সটা বিশেষ, কারণ এর মধ্যে তাপমাত্রা থাকে ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

  • ট্রাফিক জ্যাম সার্ভিস

গাড়িতে বসে মাত্রাতিরিক্ত ট্রাফিক জ্যামে বিরক্ত? চীনে এটা কোনো ব্যাপারই নয়। কারণ, জ্যামে বসে না থেকে চাইলে আপনি ‘ট্র্যাফিক জ্যাম স্ট্যান্ডস ইন’ নামে একটি সার্ভিসে ফোন দিতে পারেন। ফোন দিলেই দু’জন ব্যক্তি হাজির হবেন। একজন আপনার গাড়ির দেখভাল করবে, অন্যজন মোটরবাইকে করে আপনাকে গন্তব্যে পৌছে দেবে।

  • টিবাকস!

চীনারা নাকি নকলে ওস্তাদ! আসলেই তাই, আমেরিকার খ্যাতনামা স্টারবাকসের অনুকারণে সেখানে আছে টি হাউজ চেইন টিবাকস।

  • আত্মহত্যা প্রতিরোধ

চীনা প্রতিষ্ঠানগুলো তাদের দালানের চারপাশে নেট দিয়ে ঘিরে রাখে, যাতে করে কেউ আত্মহ্ত্যার চেষ্টাও করতে না পারে।

  • ভুতের বিয়ে

অনেক সময় কেউ লাশ চুরি করে, কেউ বা অনেক অর্থ খরচ করে লাশ কেনে। এটা করা হয়, নিজেদের মৃত-অবিবাহিত কোনো আত্মীয়ের বিয়ে দেওয়ার জন্য।

  • বাতাস বিক্রি

না ভুল শুনছেন না, চীনে বাতাসও অর্থ দিয়ে কিনতে পাওয়া যায়। দেশটিতে ধোয়ার মাত্রা এতটাই বেশি যে, বাধ্য হয়ে বিশেষ ধরণের ক্যানে করে বিশুদ্ধ বাতাস কিনতে পাওয়া যায়।

  • তেলাপোকার খামার

চীনা ওষুধগুলোতে পোকামাকড়ের ব্যবহার হয়। সেই ব্যবসা টিকিয়ে রাখতেই এখন অনেকে তেলাপোকার খামার গড়ছে। দেশটিতে এটা এখন বেশ লাভজনক ব্যবসা।

  • ভুতের শহর

চীনের দামী ২০৩০ সালের মধ্যে যুক্তরাষ্ট্রের ১০ শতাংশ ও গোটা বিশ্বের ২৫০ মিলিয়ন মানুষ চলে আসবে চীনে। তাই আগাম কিছু শহর বানিয়ে রেখেছে তারা। থাকার জন্য তারা যে ফ্ল্যাটগুলো বানিয়েছে তার কেবল ১৫ শতাংশতে মানুষ থাকে। হঠাৎ করে গেলে ভুতের শহর বলে মনে হয়।

  • ২৭০ বছর পুরনো পাথুরে বন

চীনের পাথরের বন ২৭০ বছর পুরনো। এটা ইউনেস্কোর বিবেচনা ওয়ার্ল্ড হেরিটেজ সাইটের তালিকায় জায়গা করে নিয়েছে।

  • বাড়ি ছাড়তে অনীহা

কনস্ট্রাকশন কাজ চলাকালে চীনারা চাইলে নিজেদের বাড়ি ছাড়তে অনীহা প্রকাশ করার ক্ষমতা রাখে। সেক্ষেত্রে, রাজমিস্ত্রীরা বাধ্য হয়ে তাঁদের বাড়ি ছাড়া বাকি অংশের কাজ করে থাকেন। এই ছবিতে যেমনটা দেখা যাচ্ছে আর কি!

  • জনসম্মুখে ঘুমের পোশাক

চীনারা ঘুমের পোশাক গায়ে দিয়ে বাইরে বের হতে সংকোচ বোধ করে না। তাই, চীনে এমন দৃশ্য আপনি অহরহই দেখতে পাবেন।

  • সেনাবাহিনীর নারী

সেনাবাহিনীতে নারীদের অনেক দেশেই সুযোগ দেওয়া হয়। তবে, চীন এক্ষেত্রে একটু আলাদা। সেখানে নারীদের তো সুযোগ দেওয়া হয় বটেই, বেছে বেছে সবচেয়ে আকর্ষণীয়রা সেখানে জায়গা পান।

– ব্রাইট সাইড অবলম্বনে

অলিগলি.কমে প্রকাশিত সকল লেখার দায়ভার লেখকের। আমরা লেখকের চিন্তা ও মতাদর্শের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। প্রকাশিত লেখার সঙ্গে মাধ্যমটির সম্পাদকীয় নীতির মিল তাই সব সময় নাও থাকতে পারে।