জ্বলজ্বলে তারা

বাদলা দিনে মনে পড়ে ছেলেবেলার গান

বৃষ্টি পড়ে টাপুর টুপুর নদে এলো বান

হাবিব ওয়াহিদের ‘চলো বৃষ্টিতে ভিজি’ গানে সেই বৃষ্টি ভেজা ‘আমার আছে জল’ এর ষোড়শী কন্যা বা শেষের কবিতার পরের কবিতার সেই উচ্ছল তরুনীর রুপে মুগ্ধ হয়নি এমন তরুণ খুঁজে পাওয়া দুষ্কর হবে। সেই দিনের সেই ষোড়শী কন্যা বর্তমান সময়ে নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করার জন্য চেষ্টা করে যাচ্ছেন, তিনি বিদ্যা সিনহা সাহা মীম।

২০০৭ সালে লাক্স চ্যানেল আই সুপারস্টারে প্রথম হয়ে আলোচনায় চলে আসেন। নিজের অভিনয় জীবন শুরু করেন হুমায়ূন আহমেদের সাহচর্যে, ওই বছরেই মাহফুজ আহমেদের নাটক ‘শেষের কবিতার পরের কবিতা’য় অভিনয় করে দারুণ আলোচিত হন।

এরপর ধীরে ধীরে বাড়তে থাকে নাটকের সংখ্যা, উল্লেখযোগ্য নাটকের মধ্যে রহস্য, ভালোবাসি তাই, নভেম্বর রেইন, অলসপুর, সেই মেয়েটি, ট্রাম্পকার্ড, উদ্দেশ্য নেই অন্যতম।

চলচ্চিত্রে প্রথম অভিনয় হুমায়ূন আহমেদের ‘আমার আছে জল’ এর মাধ্যমে। সিনেমা সেভাবে প্রত্যাশা পূরণ না করলেও গান গুলো জনপ্রিয়তা পেয়েছিল। দ্বিতীয় সিনেমা ‘আমার প্রানের প্রিয়া’, শাকিব খানের বিপরীতে এই ছবি বাণিজ্যিক সফল।

তখন চলচ্চিত্রে নিয়মিত হবার ইচ্ছা রাখছিলেন, ঠিক সেই সময় ‘ভালোবাসলেই ঘর বাঁধা যায় না’ সিনেমা থেকে বাদ পড়ে যাওয়ায় অভিমান করে চলচ্চিত্র থেকে দূরে সরে যান।

বেশ কয়েক বছর পর ইমপ্রেস টেলিফিল্মের ‘জোনাকীর আলো’র মাধ্যমে আবার চলচ্চিত্রের পর্দায় আসেন, একই বছর মুক্তি পায় ‘তাঁরকাটা’। চলচ্চিত্রে নিয়মিত হতে থাকেন, বিশেষ করে ‘পদ্ম পাতার জল’-এ দারুণ আলোচিত হবার কারণে নির্মাতাদের সুদৃষ্টি পড়ে, যৌথ প্রযোজনার ছবি ‘ব্ল্যাক’-এও অভিনয় করেন।

গত বছর বেশ প্রশংসিত হন ‘সুইটহার্ট’ ছবিতে অভিনয় করে, মুক্তি পায় ‘আমি তোমার হতে চাই’ ছবিটিও। এই বছরের শুরুতেই মুক্তি পেয়েছে ‘ভালোবাসা এমনই হয়’, বিধিবাম ছবিটি একেবারেই হতাশ করেছে। সম্প্রতি মুক্তি পেয়েছে ‘দুলাভাই জিন্দাবাদ’ এটাও হতাশাজনক।

মাঝে কলকাতায় মুক্তি পেয়েছে ‘ইয়েতি অভিযান’, বেশ প্রশংসিত হয়েছেন বলে শোনা যাচ্ছে। মুক্তির অপেক্ষায় আছে ‘পাষান’ ও ‘আমি নেতা হবো’র মত ছবি, আশা রাখি এই ছবি দুটি দিয়ে সমুজ্জ্বল হয়ে উঠবেন, আর নিজেকে সুনির্বচনীয় রাখার চেষ্টা করবেন। চলচ্চিত্রাঙ্গনে তিনি হয়ে উঠবেন শীর্ষস্থানীয় নায়িকা এই আশা রাখি।

১৯৯২ সালের ১০ নভেম্বর জন্ম নেওয়া এই তারকা চলচ্চিত্রে তাঁর স্বল্প ক্যারিয়ারে ইতিমধ্যেই পেয়ে গেছেন জাতীয় পুরস্কার, প্রথম ছবিতেই মেরিল প্রথম আলো পুরস্কারে ভূষিত হন। বিজ্ঞাপন জগতেও বেশ সমুজ্জ্বল তিনি, মডেল হয়েছেন লাক্স, গ্রামীন ফোনের বিজ্ঞাপনে। তাঁর জন্য রইলো শুভকামনা।

Related Post

অলিগলি.কমে প্রকাশিত সকল লেখার দায়ভার লেখকের। আমরা লেখকের চিন্তা ও মতাদর্শের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। প্রকাশিত লেখার সঙ্গে মাধ্যমটির সম্পাদকীয় নীতির মিল তাই সব সময় নাও থাকতে পারে।